Ad Code

ডিজিটাল মার্কেটিং কি? Introduction to digital marketing.

ডিজিটাল মার্কেটিং কি? 

খুব ছোট একটি প্রশ্ন হলেও  এর উত্তরে যথেস্ট ব্যাখ্যার প্রোয়জন রয়েছে। তবুও ব্লগের এই পোস্টে ডিজিটাল মার্কেটিং বিষয়টা সংক্ষেপে ক্লিয়ার করার চেস্টা করব।  

কোন একটি কোম্পানি খোলার পর সেই কোম্পানি সবার সাথে তাদের কোম্পানির কথা প্রচার করে যাতে সেই কোম্পানিকে সবাই চেনে জানে এবং সেই কোম্পানির পন্য ক্রয়ে আগ্রহী হয়। এই প্রক্রিয়াটি কোম্পানির অফলাইন মার্কেটিং। অপরদিকে এই একই কাজ যদি অনলাইনে করা হয় তবে সেটা হবে ডিজিটাল মার্কেটিং। এককথায় অনলাইনের মাধ্যমে কোন কিছুর প্রচার অথবা প্রসার করার নামই হচ্ছে অনলাইন মার্কেটিং বা ডিজিটাল মার্কেটিং।  তথ্য প্রযুক্তির বিপ্লবের এই যুগে যেখানে সকল সেবা মানুষের হাতের মুঠোয় সেখানে ডিজিটাল মার্কেটিং তথাগত সেই পুরানো ডোর টু ডোর মার্কেটিং পলিসিকে পেছনে ফেলে সামনে এগিয়েছে অনেক দূর!! বর্তমানে ডিজিটাল মার্কেটিং বিভিন্ন মাধ্যম ব্যবহার করে করা যায় যেমন: ফেসবুক, টুইটার,লিংকডইন,ইনস্টাগ্রাম,পিন্টারেস্ট গুগল,ইয়াহু, বিং ইত্যাদি।
 



কেন ডিজিটাল মার্কেটিং?
গতানুগতিক মার্কেটিং পলিসি থেকে ডিজিটাল মার্কেটিং অনেক বেশি কার্যকর এবং সহজ। কারন ডিজিটাল মার্কেটিং এর মাধ্যমে ঘরে বসেই  সল্প সময়ে অধিক বিক্রয় নিশ্চিৎ করা যায়। ডিজিটাল মার্কেটিং একটি ব্যাপক প্রক্রিয়া। এর মাধ্যমে সকল স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর নিকট ডিজিটাল পন্যের প্রচারনা পৌছে যায় চোখের পলকেই। তাই সল্প সময়ে ব্যাবসার লক্ষ্যে পৌঁছানোর ক্ষেত্রে ডিজিটাল মার্কেটিং এর কোন বিকল্প নেই।

ডিজিটাল মার্কেটিং এর বিষয়বস্তুঃ

ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পুর্ন একটি নতুন ধারনা হলেও বর্তমান প্রেক্ষাপটে ডিজিটাল মার্কেটিং বিভিন্ন গূরুত্বপূর্ন বিষয় নিয়ে কাজ করে। ডিজিটাল মার্কেটিং এর ক্ষেত্রসমূহঃ
সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং


উপরের কয়েকটি ছাড়াও ডিজিটাল মার্কেটিং এর আরো বেশ কিছু অংশ রয়েছে। তবে উপরে দেখানো দশটি ডিজিটাল মার্কেটিং এর পদ্ধতি গুলো বেশি লাভজনক প্রচলিত মাধ্যম এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মার্কেটিং।

কিভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং শুরু করবেন?
যে কোন কাজ করার আগে অবশ্যই সেই কাজ সম্পর্কে পূর্ণাঙ্গ ধারনা থাকতে হবে। ডিজিটাল মার্কেটিং এর ক্ষেত্রেও বিষয়টা একই। ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ করার জন্য অবশ্যই ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে সঠিক এবং স্বচ্ছ ধারনা থাকতে হবে। এক্ষেত্র ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে জানতে গুগুল, ইউচিউব অথবা অনলাইনের বিভিন্ন ব্লগের সাহায্য নেওয়া যেতে পারে। এছাড়া এখন অনেক প্রতিস্ঠান ডিজিটাল মার্কেটিং এর কোর্স করাচ্ছে যেখান থেকে ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে মোটামুটি ভাল ধারনা পাওয়া যেতে পারে।
 



ধরুন, আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং সম্পর্কে বেশ ভালই ধারনা রাখেন। এখন ডিজিটাল মার্কেটিং করে অনলাইন থেকে ইনকামের জন্য আপনাকে প্রাথমিক ভাবে আপওয়ার্ক অথবা ফাইবার এর মত মার্কেটপ্লেসের উপর নির্ভর করতে হবে। এখন বাংলাদেশে এই সকল ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস থেকে ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ করে অনেকেই বেশ ভাল অংকের টাকা ইনকাম করছে। 

 




এছাড়াও আপনি অফলাইনে ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ করতে পারেন। তার জন্য আপনাকে ক্লায়েন্টের সাথে ফেস টু ফেস কথা বলে তার ব্যাবসা সম্পর্কে জেনে তার প্রতিস্ঠানের জন্য যদি অনলাইনে ডিজিটাল মার্কেটিং এর কাজ শুরু করতে পারেন তবে সেক্ষত্রে আপনি অফলাইনে কাজ করেও ভাল অংকের টাকা ইরমনকাম করতে পারেন।

উপরে উল্লেখিত পদ্ধতি ছাড়াও আরও অনেক পদ্ধতিতে ডিজিটাল মার্কেটিং করা যেতে পারে যা অনলাইন থেকে  আপনার ইনকাম করার সম্ভাবনা বাড়িয়ে দেবে শতগুণ !!

দয়া করে বেশি বেশি শেয়ার করবেন এবং এই ব্লগটিকে বড় হতে সাহায্য করবেন।

Post a Comment

0 Comments

Close Menu